‘কমিউনিটি পুলিশি কার্যক্রম সমাজকে অপরাধ কর্মকান্ড হতে বিরত রাখে’

0
23
নিউজটি শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ সক্রিয় কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের কার্যক্রম সমাজকে অপরাধ মূলক কর্মকান্ড হতে বিরত রাখে- পংকজ দত্ত, অতিরিক্ত উপ পুলিশ কমিশনার(পশ্চিম), সিএমপি। সিএমপি আকবরশাহ থানায় “আস্ক ইওর লোকাল পুলিশ অফিসার” Ask Your Local Police Officer কার্যক্রম অনুষ্ঠিত
পুলিশ ও জনগনের মধ্যকার দুরত্ব কমিয়ে পরস্পরের মধ্যে আস্থা ও বিশ্বাস বাড়ানোর লক্ষ্যে এবং জনগণের সম্পৃক্ততায় এলাকার কমিউনিটি পুলিশিং এবং থানার সহযোগিতা নিয়ে সকল ধরণের নির্যাতন, সহিংসতা, মাদক, ইভটিজিং সহ বিভিন্ন ধরণের অপরাধমূলক কর্মকান্ড কমানোর লক্ষ্যে আইন শৃংখলাবাহিনীকে সম্পৃক্ত করার প্রয়াসে আকবর শাহ থানার ফিরোজ শাহ হাজী ঘোনা এলাকায় সিএমপি আকবরশাহ থানার আয়োজনে পিস প্রকল্পের সহযোগিতায় “আস্ক ইওর লোকাল পুলিশ অফিসার” Ask Your Local Police Officer কার্যক্রম ২৪ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হয়।

সংশপ্তক পিস প্রকল্পের সমন্বয়কারী মোহাম্মদ ওবায়দুর রহমানের সঞ্চালনায় এবং আকবর শাহ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ জহির হোসেন পিপিএম-সেবা’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত উপ পুলিশ কমিশনার (পশ্চিম), সিএমপি পংকজ দত্ত।

অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দি এশিয়া ফাউন্ডেশনের সিনিয়র পরিচালক নজরুল ইসলাম, আকবর শাহ থানার ওসি (তদন্ত) এম সাকের আহমেদ অনুষ্ঠানে দি এশিয়া ফাউন্ডেশন’র চট্টগ্রামে নিয়োজিত প্রোগ্রাম অফিসার মো. নাসির উদ্দিন সহ কমিউনিটি ও বিট পুলিশের সদস্যরাসহ আকবর শাহ থানা পুলিশের বিভিন্ন বিটের এবং থানায় নিয়োজিত পুলিশ ও স্থানীয় জনগন অংশগ্রহণ করেন।

পুরো কার্যক্রমটি বাস্তবায়নে সার্বিক দায়িত্ব পালন করেন সংশপ্তক-পিস প্রকল্পের উপজেলা সমন্বয়কারী মোমেনা আক্তার সাথী। দুই ভাগে বিভক্ত কার্যক্রমে ১ম পর্বে পিস প্রকল্প সম্পর্কে বক্তব্য উপস্থাপন করেন সংশপ্তক-পিস প্রকল্পের ট্রেনিং এন্ড প্রজেক্ট অফিসার শবনম মোস্তারী।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন আকবর শাহ থানার ওসি (তদন্ত) এম সাকের আহমেদ। এরপর আকবর শাহ থানার সার্বিক আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি কার্যক্রম তোলে ধরেন আকবর শাহ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহম্মদ জহির হোসেন পিপিএম-সেবা। উনার বক্তব্যের পর প্রশ্ন উত্তর পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। উপস্থিত জনতা পুলিশের মুখোমুখি হয়ে তাদের এলাকার বিভিন্ন সমস্যা ও তা সমাধানের জন্য পুলিশের কাছে প্রশ্ন করেন।

বিশেষতঃ জুয়া ও মাদক প্রতিরোধের ক্ষেত্রে কিভাবে পুলিশ থেকে সহযোগিতা পেতে পারে, একজন কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের সদস্য হয়ে কিভাবে এলাকার আইন-শৃংখলা বিষয়ে পুলিশকে সহযোগিতা করতে পারেন, এই ক্ষেত্রে বর্তমান পদক্ষেপ কি? ইয়াবা সেবন ও ব্যবসা প্রতিরোধে কিভাবে কাজ করা যায়, মাদক বন্ধে সিপিএফ এবং পুলিশের ভূমিকা কি এবং উগ্রবাদী কোন কর্মকান্ড সংগঠিত হওয়ার কোন আশংকা দেখা দিলে তাদের করণীয় ইত্যাদি বিষয়ে প্রশ্ন উত্তাপন করেন। পুলিশ এর পক্ষ থেকে তার প্রতিকারের উপায় বিষয়ে উত্তর প্রদান করেন আকবর শাহ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহম্মদ জহির হোসেন পিপিএম-সেবা। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে দি এশিয়া ফাউন্ডেশনের সিনিয়র পরিচালক নজরুল ইসলাম, পুলিশের কর্মকান্ডে জনতার মুখোমুখি হওয়া এবং কমিউনিটি পুলিশিং কার্যক্রমকে বেগবান করার জন্য চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার এবং জেলা পুলিশ সুপার সহ আযোজনে উপস্থিত সকল পুলিশ কর্মকর্তাকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে অতিরিক্ত উপ পুলিশ কমিশনার (পশ্চিম), সিএমপি পংকজ দত্ত – সকল অপরাধ মূলক কর্মকান্ড নস্যাৎ করার জন্য কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামকে ঢেলে সাজানোর প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন সক্রিয় কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের কার্যক্রম সমাজকে অপরাধ মূলক কর্মকান্ড হতে বিরত রাখে এবং জনগনের পাশে পুলিশের যৌথ কার্যক্রম অবদান রাখতে পারে। এবং সমাজে অপরাধ প্রবনতা কমিয়ে আনতে ভূমিকা রাখতে পারে। তিনি কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের সাথে কার্যক্রম পরিচালনা এবং জনতা ও পুলিশের মধ্যে সমন্বয় সাধন করার প্রয়াসের জন্য সংশপ্তক ও দি এশিয়া ফাউন্ডেশনের ভূঁয়সী প্রশংসা করেন। ধন্যবাদ বক্তব্য রাখেন সংশপ্তকের প্রধান নির্বাহী লিটন চৌধুরী। এর পর অনুষ্ঠানের সভাপতি আকবর শাহ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ জহির হোসেন পিপিএম-সেবা সভার সমাপ্ত ঘোষণা করেন।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সাল হতে বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা সংশপ্তক কর্তৃক দি এশিয়া ফাউন্ডেশন এর আর্থিক সহয়োগীতায় চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন ও চট্টগ্রাম জেলার আওতাধীন বাঁশখালী, আনোয়ারা, সাতকানিয়া, চন্দনাইশ, বোয়ালখালী, কর্ণফূলী উপজেলা ও সংশ্লিষ্ট থানায় সংশপ্তক- পিস প্রকল্প বাস্তবায়িত হচ্ছে।

#SN 


নিউজটি শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here